অজগরের পেট থেকে বেরল বৃদ্ধার দেহ!

By: অরিত্র অনিকেত 2018-06-18 22:37:56 আন্তর্জাতিক
ছবিঃ প্রতীকী ছবি

আশঙ্কা সত্যি হল পেট কাটার পর। ২৩ ফুট লম্বা অজগরের পেট থেকে বেরিয়ে এল এক বৃদ্ধার অবিকৃত মৃতদেহ। হাড় হিম করা এই ঘটনা ঘটেছে ইন্দোনেশিয়ার মুনা দ্বীপের সুলাওয়েসি উপকূলের একটি গ্রামে। 

বৃহস্পতিবারের ঘটনা। ওই দিন সব্জির বাগানে গিয়েছিলেন পার্সিয়াপান লওয়েলা গ্রামের বাসিন্দা ওয়া টিবা (৫৪)। রাত পর্যন্ত তিনি বাড়ি না ফেরায় খোঁজখবর শুরু করেন আত্মীয়-পরিজনরা। কিন্তু সন্ধান মেলেনি। তখন গ্রামবাসীরা ওই সব্জির বাগানে খোঁজাখুঁজি শুরু করেন।

বাগানের মধ্যে একটি জায়গায় প্রথমে বৃদ্ধার চটি মেলে। তার কিছুটা দূরেই কার্যত স্থবির হয়ে পড়ে ছিল প্রায় ২৩ ফুট লম্বা একটি অজগর। সেটা দেখেই সন্দেহ হয় গ্রামবাসীদের। সাপটিকে পিটিয়ে মেরে ফেলেন তাঁরা। তার পেট কাটতেই চক্ষু চড়কগাছ। পেটের মধ্যেই রয়েছে ওয়া টিবার দেহ। অবিকৃত অবস্থায়।

স্থানীয় পুলিশ অফিসার হামকা জানিয়েছেন, শতাধিক গ্রামবাসী মিলে সাপটিকে প্রথমে মেরে ফেলে। তার পর তার পেট কেটে বৃদ্ধার মৃতদেহ বের করে। মৃতদেহটিকে দেখে মনে করা হচ্ছে, প্রথমে মাথার দিক থেকে শুরু করে বৃদ্ধার পুরো দেহটাই উদরস্থ করে অজগরটি। দেহটি ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

সুলাওয়েসি উপকূলের এই এলাকা ছোট ছোট টিলায় ঘেরা। সঙ্গে রয়েছে অসংখ্য গর্ত। সব মিলিয়ে সাপ ও অন্যান্য সরিসৃপের আতুড়ঘর এই এলাকা। অজগর-সহ নানা প্রজাতির সাপের আনাগোনাও কার্যত এলাকাবাসীর গা সওয়া হয়ে গিয়েছে। তা ছাড়া সাপের কামড়ে মাঝেমধ্যে মৃত্যুও ঘটে। গত বছর এক কৃষককে পেঁচিয়ে ধরে মেরে ফেলে একটি পাইথন। তবে এখনও পর্যন্ত কাউকে আস্ত গিলে খাওয়ার নজির নেই এলাকায়। স্বাভাবিক ভাবেই এই ঘটনার পর এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়েছে।

সাধারণত ইন্দোনেশিয়া ও ফিলিপিন্সে ৬ মিটারের বেশি লম্বা অজগর দেখা যায় না। কিন্তু এই অজগরটি সাত মিটোরেরও বেশি লম্বা হওয়ায় আতঙ্ক আরও বেড়েছে গোটা এলাকায়।