সবার একটা ইউটিউব চ্যানেল আছে !

By: অরণ্য শোয়েব 2019-02-04 22:46:19 বিনোদন

ডিজিটাল প্লাটফর্ম ,যুগের সাথে তাল মিলিয়ে চলাটাই তো শ্রেয় | আগের চেয়ে বেড়েছে যোগাযোগ মাধ্যম এবং বেড়েছে বিনোদনিক সব ডিজিটাল মাধ্যম | এর মধ্যে একটি আছে ইউটিউব | বাংলাদেশে গত কয়েক বছরে কয়েক লক্ষ ইউটিউব চ্যানেল ওপেন হয়েছে | এর মধ্যে হাতে গোনা কয়েকটি রীতিমতো আলোচনায় আছে | তবে এখন ইউটিউবের দিকে হাটছে তারকারাও | 

অভিনেতা হিল্লোলকে এখন আর অভিনয়ে দেখা যায় না। তিনি ভীষণ ব্যস্ত তাঁর ইউটিউব চ্যানেল নিয়ে। অভিনয়ে ব্যস্ততা কমিয়ে হঠাৎ ইউটিউব চ্যানেলে মন দেয়ার কারণটা জানালেন তিনি। শোবিজে আছেন প্রায় ১৫ বছর। অভিনয় করেছেন শতাধিক নাটক এবং বেশ কিছু চলচ্চিত্রে। একটা সময় মনে হলো হিল্লোলের, ‘দিনশেষে আসলে আমার নিজস্ব কী আছে? যা-ই করছি সবই তো অন্যের। আমি হয়তো কিছু টাকা পাচ্ছি। কিন্তু আমি যে কাজ করছি তা আজীবনের জন্য থেকে যাচ্ছে প্রডিউসার, নয়তো চ্যানেলের কাছে। মনে হলো, ডিজিটাল এই সময়ে নিজের একটা পরিচয় তৈরি করা উচিত। সে ভাবনা থেকেই ইউটিউবে নিজের একটা চ্যানেল করি,‘আদনান ফারুক’ কিন্তু দেখাব কী? ‘খাওয়াদাওয়া আর ঘোরাঘুরি করতে খুব ভালো লাগে আমার। শুরু করলাম খাবার ও ঘোরাঘুরি নিয়ে ভিডিও করা।’ 

দেশের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি এখন তারকারাও ছুটছে ইউটিউবের পেছনে। এখন জনপ্রিয় তারকা প্রায় সবাই ইউটিউব চ্যানেল খুলেছে। আর অপেক্ষা করুণ কিছুদিনের মধ্যে আইনী জটিলতা দেখা দিবে এই ইউটিউব চ্যানেল নিয়ে। কথা উঠবে সম্পত্তি কার? প্রযোজক, অভিনেতা, পরিচালক নাকি চ্যানেলের? এতদিন এই ইউটিউব চ্যানেলের মধ্যে সঙ্গীতশিল্পীরাই ছিলেন সিংহভাগ। আজকাল অভিনয়শিল্পীরাও সমানতালে ইউটিউব চ্যানেল খুলছে। 


‘মেহজাবীন চৌধুরী’ -

নামে চ্যানেল খুলেছে স্বনামের অভিনেত্রী। নামের এই চ্যানেলটিতে এখন সাবস্ক্রাইবার ১ লাখ ৩২ হাজারের ওপরে। চ্যানেলটিকে ইউটিউব ভেরিফায়েড করেছে। ‘র‌্যাপিড ফায়ার উইথ মেহজাবীন’ ও ‘টিকটক’ শিরোনামের দুইটা অনুষ্ঠান করছেন মেহাজাবিন। যেখানে তারকারা উপস্থিত হচ্ছেন। শুধু এককভাবে নয়, যৌথভাবেও ইউটিউব চ্যানেল খুলেছেন তারকারা। 

অভিনেত্রী মুমতাহিনা টয়া ও সাফা কবির-

অভিনেত্রী মুমতাহিনা টয়া ও সাফা কবির মিলে চালু করেছেন ‘হলো স্টারস’ নামের একটি চ্যানেল। এটাতে প্রায় ৯৬ হাজার সাবস্ক্রাইবার রয়েছেন। তারা এখানে নিয়মিত ভ্রমণ, আড্ডার মজার মজার ভিডিও আপলোড করেন। নিলয় আলমগীরও হেটেছেন এইপথে।

নিলয় -

নিজের পরিচালনায় ও অভিনয়ে বেশ কিছু নাটক ও স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র আপলোড করেছেন ‘নিলয় আলমগীর ফিল্মস’ নামের চ্যানেলটিতে। এখন সাবস্ক্রাইবার ২ লাখ ৮২ হাজার ছাড়িয়েছে। আপলোড করেছেন নিজের অভিনীত নাটক ও স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র। 

এসআই টুটুল ও তানিয়া-

এসআই টুটুল ও তানিয়া দম্পতিরও আছে ইউটিউব চ্যানেল। তাদের চ্যানেলের নাম হাই ফাইভ এন্টারটেইনমেন্ট। নতুন-পুরনো শিল্পীদের নানান ধরনের অনুষ্ঠান নিয়ে সাজানো হয়েছে এই ইউটিউব চ্যানেল। শাকিব খানের সিনেমায় শিডিউল পাওয়াই ভীষণ দায়। গত বছর জন্মদিনে তিনি ঘোষণা দিলেন ইউটিউব চ্যানেল খোলার। তার নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেল ‘শাকিব খান অফিসিয়াল’। তবে সেখানে মাত্র ৫৯ হাজার সাবস্কাইবার। অপূর্বরও আছে ইউটিউব চ্যানেল। 

আরও অনেক তারকাই প্রস্তুতি নিচ্ছেন ইউটিউব চ্যানেল খোলার। নিজের নামে চ্যানেল খুলে নানা ভিডিও আপলোড দিচ্ছেন। সেখান থেকে হয়তো তাদের কিছু টাকা মিলেছে। কিন্তু শিল্পীদের যে শৈল্পীক কার্যাবলি, সেটা তো হচ্ছে না।

আর এতে যে খুব শিগগিরই নতুন ঝামেলার সৃষ্টি হবে। তারকারা তার নিজের নাটক আপলোড দিচ্ছেন। কিন্তু সেই নাটকের মালিকানা নিয়ে দ্বন্দ্বের খবর শোনা যাচ্ছে। বাংলাদেশে যত দ্রুত এই ইউটিউবের বাজার গড়ে উঠছে। এখানে ঝামেলাও তত বাড়ছে। অতি দ্রুত ইউটিউবের উপর আইন প্রণয়ন করা উচিত।