রুম্মান রশীদের রাঙা সকালে জানাবেন তাদের কথা

সবাই তাদের চেনেন অনন্ত জলিল-বর্ষা নামে। তবে দর্শক প্রিয় এই জুটি জানালেন, তাদের পূর্ব নাম ছিল সঞ্জু ও খাদিজা। অনন্ত জলিল জানান, ছোটবেলায় খুব দুষ্টু ছিলাম। তখন আমার গৃহশিক্ষক আব্দুল জলিলের নামের অনুপ্রেরণায় বাবা আমার নাম রেখে দেন ‘আব্দুল জলিল’। পরবর্তীতে আমার বড় ভাই আমার ডাক নাম রাখেন ‘অনন্ত’। এই নামটি আমার খুব পছন্দ হয়। যে কারণে আমি এখন অনন্ত জলিল।

অন্যদিকে বর্ষা জানান, ছোটবেলায় তার নাম ছিল ‘খাদিজা’। সেখান থেকে বড় হবার পর ঘটনাক্রমে তার নাম বর্ষা রাখা হয়। কি সেই ঘটনা-তা বর্ষা জানিয়েছেন মাছরাঙা টেলিভিশনের নিয়মিত অনুষ্ঠান ‘রাঙা সকাল’ এর বিশেষ ঈদ আয়োজনে। খুব শিগগীরই ‘দিন-দ্য ডে’ ছবি নিয়ে পাঁচ বছর পর বড় পর্দায় দেখা যাবে অনন্ত-বর্ষা জুটিকে।

তারা জানান, ইরানে ৪৭ ডিগ্রী সেলসিয়াস তাপমাত্রার ভেতরেও কাজ করেছেন এ ছবির জন্য। সংখ্যাতত্ত্ব কিংবা জ্যোতিষশাস্ত্রে বিশ্বাস না করলেও ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১১ অনন্ত-বর্ষার বিয়ে হয় এবং তাদের দুই সন্তান আরীজ ও আবরারের জন্ম হয় যথাক্রমে ২৩ অক্টোবর ও ২৩ নভেম্বর। দুজনই জানান, খ্যাতির কোনো বিড়ম্বনা হতে পারেনা। সৃষ্টিকর্তার আশীর্বাদে ভক্ত-দর্শকরা তাদের পছন্দ করেন। এমনও হয়েছে বন্ধু কিংবা প্রিয়জনের জন্মদিনের অনুষ্ঠানে গিয়ে টানা দেড় ঘন্টা ভক্তদের সেলফি তোলার আবদার মেটাতে হয়েছে। হাসিমুখে ভক্তদের এই ভালোবাসা মেনে নিতে অনন্ত-বর্ষা সদা প্রস্তুত।

রুম্মান রশীদ খান ও সাকীর উপস্থাপনায় রকিবুল আলম ও জোবায়ের ইকবালের প্রযোজনায় দুই ঘন্টার ব্যাপী ‘রাঙা সকাল’-এর এই বিশেষ পর্বটি প্রচারিত হবে ঈদের ২য় দিন (আসছে ১৩ আগষ্ট) সকাল ৭টা থেকে ৯টা, মাছরাঙা টেলিভিশনে।