আমি বাংলাদেশের মতো হয়ে কাজ করতে চাই -দেব

(অরণ্য শোয়েব )-কলকাতা বাংলার জনপ্রিয় চিত্রনায়ক দীপক অধিকারী (দেব ) । ২০০৬ সালে অগ্নিশপথ সিনেমায় অভিনয়ের মধ্যে দিয়ে বড় পর্দায় অভিষেক ঘটে ।

কিন্তু ছবিটি মুখ থুবড়ে পরে বক্স অফিসে ,এরপরে ২০০৭ রবি কিনাগী পরিচালিত ‘ আই লাভ ইউ ‘ ছবিতে তার ভাগ্য টান দেয় ।ছবিটি দর্শক মহলে প্রসংশিত এবং ব্যবসাসফল হয় , টালিগঞ্জে এরপরে দেবকে আর পিছনে ফিরতে হয়নি । দেবকে কলকাতার দুএকটা আইটেম গানেও দেখা গেছে ।

তিনি কলকাতার বেশি পারিশ্রমিক পাওয়া অভিনেতা , দেব অভিনয়ের পাশাপাশি সিনেমা প্রযোজনা করেন । ‘দেব এন্টারটেইনমেন্ট ভেঞ্চার প্রাইভেট লিমিটেড ‘ নামে তার একটি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান আছে । ‘চাঁদের পাহাড় ‘ ‘ককপিট ‘ ‘আমাজান অভিযান ‘ ‘কবির ‘ ‘চ্যাম্প’ সহ বেশ কিছু ছবি তিনি প্রযোজনা করেছেন । বর্তমানে তিনি অভিনয়ের বাহিরে রাজনীতিও সরব ,তৃণমূল কংগ্রেস থেকে ২০১৪ সালে লোকসভা নির্বাচনে বিপুল ভোট জয়ী হন ।

আসছে দূর্গা পূজা এবং পূজাকে কেন্দ্র করে দেব অভিনীত ছবি ‘পাসওয়ার্ড ‘মুক্তি পাচ্ছে ,ছবিটি প্রযোজনা করছেন দেবের নিজস্ব প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ‘দেব এন্টারটেইনমেন্ট ভেঞ্চার প্রাইভেট লিমিটেড ‘ ।

ছবিটির প্রসঙ্গে দেব কলকাতার সাউথ সিটি কমপ্লেক্সের অফিস থেকে বাংলা প্রতিদিন ডট কমের সাথে কথা বলেন যে , এটি সম্পূর্ণ থ্রিলার একটি গল্প । অ্যাকশন, গান একদম আলাদাভাবে করা হয়েছে এ-ছবিতে । ‘পাসওয়ার্ড’ ছবিটি করতে গিয়ে বেশ ঝামেলা পোহাতে হয়েছে আমার , বেশ কিছুদিন আগে আমার অফিসের কম্পিউটার হ্যাক হয়েছিল । সাইবার ক্রাইম নিয়ে ছবি হচ্ছে তাই হয়তো হ্যাকররা চায়না এমন কিছু হোক ।

কতগুলো হলে মুক্তি পাবে তা নিয়ে বৈঠক চলছে । এবং ছবিটি বাংলাদেশে মুক্তিরও কথা হচ্ছে । বাংলাদেশে আমার অনেক ভক্ত আছে ,তাদের কাছে ছবিটি পৌঁছে দিতে পারলে আমার ভালো লাগবে ।

দেব আরো বলেন ,বাংলাদেশ আমার দ্বিতীয় বাড়ি মনে হয় সব সময় । এবং আপ্পায়ন যদি শিখতে হয়ে সেটা বাংলাদেশের কাছে শিখতে হবে । আমার মনে হয়না কাঁটাতারের বেষ্টনী দুটো সাংস্কৃতিককে আলাদা করতে পারে ।

বাংলাদেশের কাজের প্রসঙ্গে দেব বলেন , আমি বাংলাদেশের মতন করেই কাজ করতে চাই ।হাওয়ায় ভাসা খবর দিয়ে কিছুই হয়না , তবে হ্যা আমি বাংলাদেশে কাজ করতে আমার আগ্রহ আছে এবং করলে ভালো কিছু করতে চাইবো । আমি চাই দুটো ইন্ড্রাস্টি বড় হোক , হলিউড বলিউড এর সাথে আমরা কম্পেয়ার করতে চাই । এবং যারা বাংলাদেশে এখন কাজ করছে তারা খুব ভালো করছেন এবং আমাদের এখন থেকেই তো অনেকেই কাজ করছে বাংলাদেশে । আমি চাই এই সেতুবন্ধনটা অটুট থাকুক ।